প্রভাবশালী তারকা রাশ্মিকা

আজকের পত্রিকা

8

‘পুষ্পা’ ছবিতে আল্লু অর্জুনের প্রেমিকা শ্রীবল্লীর চরিত্রে অভিনয় করেছেন রাশ্মিকা। ছবিটির জন্য টানা দেড় বছর সময় দিয়েছেন রাশ্মিকা। এর মধ্যে অনেক সময়ই টানা কয়েক দিন সেটে থাকতে হয়েছে।

মা-বাবাসহ পরিবারের কারো সঙ্গেই দেখা পর্যন্ত হয়নি। রাশ্মিকা মজা করে এক সাক্ষাৎকারে বলেন, ‘আমি তো ছবির পরিচালক সুকুমারকে বলেছিলাম, মা-বাবা মনে হয় আমাকে ত্যাজ্য করে দেবেন। আপনি আমাকে দত্তক নেবেন?’

রাশ্মিকা বলেন, ‘দর্শক যদি আল্লু অর্জুনের জন্য পুষ্পা দেখতে আসে, আমি মনে করি অন্তত ৫-১০ শতাংশ দর্শক আমাকেও দেখতে আসবে। আমি চাই নায়ক-নায়িকা নয়, ছবির গল্প আর চরিত্রগুলোকে দেখতেই দর্শক আসুক। কোন তারকা অভিনয় করছেন, তার চেয়ে গল্পটা বেশি গুরুত্বপূর্ণ এই ছবিতে।’ ‘পুষ্পা’ ছবিতে আল্লু অর্জুনকে দেখা যায় ট্রাক ড্রাইভারের ভূমিকায়।

পরে জানা যায় তিনি একজন চোরাকারবারি। রাশ্মিকা তাঁর প্রেমিকা। সময় যত গড়ায় ছবির গল্প নতুন নতুন মোড় নেয়। রাশ্মিকা বলেন, ‘এখন পর্যন্ত “পুষ্পা” আমার ক্যারিয়ারের একমাত্র ছবি, যার প্রস্তাব পাওয়ার পর দ্বিতীয়বার না ভেবে ‘হ্যাঁ’ বলে দিয়েছি। এমনকি এটাও জানতে চাইনি, চরিত্রটা কী, কেমন বা এর ব্যাপ্তি কতটুকু।’

তেলুগু ও কন্নড় ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির সবচেয়ে দামি অভিনেত্রীদের একজন রাশ্মিকা মান্দানা। ২০১৬ সালে ‘কিরিক পার্টি’ ছবির মাধ্যমে কন্নড় ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে প্রবেশ করেন রাশ্মিকা।

একই সময়ে তিনি তেলুগু ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে ২০১৮ সালে ‘চলো’ দিয়ে আত্মপ্রকাশ করেন। রাশ্মিকা মান্দানা ‘গীতা গোবিন্দম’ এবং ‘ডিয়ার কমরেড’-এর মতো দর্শকনন্দিত ছবির জন্য বেশি পরিচিত।

রাশ্মিকা শিগগিরই ‘মিশন মজনু’ দিয়ে বলিউডে পা রাখছেন। বলিউডে মুক্তির তালিকায় আরও রয়েছে অমিতাভ বচ্চনের সঙ্গে ‘গুডবাই’ ও ‘ডেডলি’ নামের দুটি ছবি।

সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ুন

Previous articleগানম্যান না থাকলে ‘ব্যাক্কল’ লাগবে কেন!
Next articleবিজয়ের ৫০ বছরে উদ্ভাসিত হয়ে বিশেষ আয়োজনে ‘জয় বাংলা ইয়ুথ অ্যাওয়ার্ড’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here