গানম্যান না থাকলে ‘ব্যাক্কল’ লাগবে কেন!

সমকাল

15

সংসদ সদস্যরা বিনা শুল্ক্কে গাড়ি আনতে পারেন। বাংলাদেশের বাজারমূল্যের এক-চতুর্থাংশ বা এক-পঞ্চমাংশ দামে বিরাট সব এসইউভি (কথ্যভাবে আমরা বলি ‘জিপ’) দাপিয়ে বেড়ায় ঢাকার রাস্তা।

কোন গাড়িটি সংসদ সদস্যদের সেটা বোঝা যায়। বড় করে গাড়িতে লেখা থাকে ‘সংসদ সদস্য’।

সংসদ সদস্যদের কোনো গাড়ি দেখলেই দেখা যাবে তীব্র শব্দ দূষণের এই শহরের দূষণকে অনেকটা বাড়িয়ে সেই গাড়িতে বিকট শব্দে এক বিশেষ ধরনের হর্ন এবং সাইরেন বাজে। এটা শুধু এমপিদের গাড়িতেই না, ঢাকার রাস্তায় অনেক এসইউভিতেও বাজে এই হর্ন। খোঁজ নিয়ে জানলাম, এই বস্তুর নাম ‘ভিআইপি হর্ন’।

এমপিদের এই ‘বিশেষ’ হর্নের কথা মনে এলো সম্প্রতি একজন এমপির একটি বক্তব্য থেকে। কয়েকদিন আগে সংসদে জাতীয় পার্টির মহাসচিব মুজিবুল হক চুন্নু নিজেদের নিয়ে ভীষণ হতাশা প্রকাশ করেছিলেন; কারণ তার জবানিতেই শুনে নেওয়া যাক-

‘সারা বাংলাদেশে সব ইউএনওর বাসায় ১০ থেকে ১২ জন আর্মসধারী আনসার দেওয়া হয়েছে। আবার সেই ইউএনও সাহেবের গাড়িতে কিন্তু তিন-চারজন আনসার উইথ আর্মস তারা সঙ্গে নিয়ে যান। আর এমপিরা ব্যাক্কলের মতো ঘোরেন। এমপির পারসোনাল একটা গানও নাই।’ (সমকাল, ২৮ নভেম্বর ২০২১)

অনুমান করি, নিজেদের যাতে না ‘ব্যাক্কল’ না লাগে সে কারণেই যতটা সম্ভব দাপট দেখানোর জন্য গাড়িতে সেই তথাকথিত ভিআইপি হর্ন লাগান, আর গগনবিদারী উৎকট শব্দে নিজেদের অস্তিত্ব জানান দিতে দিতে তারা যান। এ দেশে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী ছাড়া আর কোনো ভিআইপি নেই, কিছুদিন আগে উচ্চ আদালত এক রায়ে সাফ জানিয়ে দিয়েছিলেন এই কথা।

সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ুন

Previous articleউচ্চতর ডিগ্রি নিয়ে এখনো তারা মেডিক্যাল অফিসার
Next articleপ্রভাবশালী তারকা রাশ্মিকা

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here