আমিই দলকে ডুবিয়েছি, হারের দায় আমার: বাবর

9

অনলাইন ডেস্ক: ম্যাচের পরে টুইট করে এ কথা জানান শাদাব। টুইটে তিনি লেখেন, ‘ক্যাচ ধরলে ম্যাচ জেতা যায়। আমি ক্ষমা চাইছি। এই হারের দায় আমার। আমিই দলকে ডুবিয়েছি।’ নিজেকে দায়ী করলেও দলের অন্য ক্রিকেটারদের প্রশংসা করেছেন শাদাব।

তিনি লেখেন, ‘নাসিম শাহ, হ্যারিস রউফ, মহম্মদ নওয়াজ খুব ভাল খেলেছে। রিজওয়ান লড়াই করেছে। পুরো দল নিজেদের সেরাটা দেওয়ার চেষ্টা করেছে।’

এশিয়া কাপের ফাইনালে শ্রীলঙ্কার কাছে হারের পরে বাবর আজম স্বীকার করে নিয়েছেন, খারাপ ফিল্ডিং তাঁদের হারের জন্য অনেকটা দায়ী। একের পর এক ক্যাচ ছাড়ার খেসারত দিতে হয়েছে তাঁদের।

অধিনায়কের পরে এ বার দলের সহ-অধিনায়ক শাদাব খানের মুখেও শোনা গেল সেই একই কথা। দলের হারের দায় নিলেন তিনি। পাকিস্তানের মানুষের কাছে ক্ষমা চাইলেন শাদাব।

ফাইনালে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ৫৮ রানে পাঁচ উইকেট হারিয়ে চাপে পড়ে গিয়েছিল শ্রীলঙ্কা। সেখান থেকে দলকে টেনে তোলেন ভানুকা রাজাপক্ষ। তাঁর দু’টি ক্যাচ ছাড়েন শাদাব। সেখানেই ম্যাচের রং বদলে যায়। ম্যাচের ১৮তম ওভারে রউফের বলে লং অনে ক্যাচ যায়।

সহজ ক্যাচ ছাড়েন শাদাব। তখন ৪৬ রানে ব্যাট করছিলেন রাজাপক্ষ। পরের ওভারেই রাজাপক্ষের ক্যাচ যায় স্কোয়্যার লেগ অঞ্চলে। আসিফ আলি ও শাদাব দু’জনেই সেই ক্যাচ ধরতে যান।

আসিফ বলের নীচে ছিলেন। কিন্তু হঠাৎ শাদাব এসে তাঁকে ধাক্কা মারেন। ফলে ক্যাচ পড়ে যায়। শুধু তাই নয়, ধাক্কাধাক্কিতে বল বাউন্ডারির বাইরে চলে যায়। ছ’রান পান রাজাপক্ষ।

শেষ পর্যন্ত ৪৫ বলে ৭১ রানে অপরাজিত থাকেন তিনি। রাজাপক্ষের ক্যাচ না ফস্কালে অত রান করতে পারতেন না তিনি। তা হলে আরও কম রান তাড়া করতে হত পাকিস্তানকে।

Previous articleবঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের বায়োপিক এই বছরে মুক্তি: তথ্যমন্ত্রী
Next articleখুনের হুমকি পান সালমান খান

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here